অর্জনসমূহ

শ্লোগান

১. শিল্প সংস্কৃতি ঋদ্ধ সৃজনশীল মানবিক বাংলাদেশ।
২. ৫৬ হাজার বর্গমাইলে শিল্প সংস্কৃতির আলো।
৩. ১৬ কোটি মানুষের জন্য শিল্প সংস্কৃতি।
৪. সৃজনশীল বাংলাদেশ।
৫. রুচিশীল দর্শকদের জন্য শিল্পকলা একাডেমি।

অবকাঠামোগত উন্নয়ন ও প্রকল্পসমূহ

১. ১৮টি জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে নতুন ভবন নির্মাণ কাজের সূচনা। 
২. ৪৪টি জেলার মধ্যে ১৫টি জেলা শিল্পকলা একাডেমি সংস্কার ও মেরামত কাজের সূচনা, বাকীগুলো প্রক্রিয়াধীন। 
৩. ১১টি উপজেলা শিল্পকলা একাডেমি নির্মাণ কার্যক্রমের সূচনা।
৪. চারুকলা কমপ্লেক্স নির্মাণ এবং ৭মতলা পর্যন্ত উর্দ্ধমুখীর নির্মাণ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন। 
৫. অত্যাধুনিক নন্দনমঞ্চ নির্মাণ।
৬. বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি জেলা থেকে উপজেলা পর্যন্ত বিস্তার ও কার্যক্রম সম্প্রসারিত।
৭. জেলা শিল্পকলা একাডেমি, মাদারীপুর এবং সুনামগঞ্জের নতুন ভবন উদ্বোধন।
৮. হালুয়াঘাট, নওগাঁ এবং দিনাজপুর ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী সাংস্কৃতিক একাডেমি নির্মাণ এর কার্যক্রম চলমান।

কর্মসূচি

১. সঙ্গীত ও নৃত্য সংগঠন সমূহকে সহায়তা প্রদান কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।
২. বাংলাদেশের সকল সরকারি ও বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার আয়োজন কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।
৩. জাতীয় চিত্রশালার জন্য চিত্রকর্ম ক্রয় কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।
৪. বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির ভবনসমূহ সংস্কার ও মেরামত কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।
৫. শিল্পচর্চায় তথ্যপ্রযুক্তির আধুনিক যন্ত্রপাতি সংযোজন ও ডিজিটালাইজেশন কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।
৬. ৪৮৯টি উপজেলা বালিকা বিদ্যালয়ে হারমোনিয়াম ও বায়া-তবলা সরবরাহ কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।
৭. ডিজিটাল প্রযুক্তিতে সংষ্কৃতির ভৌত সুবিধাদি সন্নিবেশকরণ কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।
৮. দেশজ সংস্কৃতির বিকাশ ও আন্তর্জাতিক সংষ্কৃতির সাথে মেলবন্ধন কর্মসূচির কার্যক্রম সম্পন্ন।

পদক ও সম্মাননা

১. ‘শিল্পকলা পদক’ প্রবর্তন এবং মহামান্য রাষ্ট্রপতি জনাব আব্দুল হামিদ কর্তৃক ২০১৩, ২০১৪, ২০১৫, ২০১৬ সালের শিল্পকলা পদক প্রদান।
২. জেলা শিল্পকলা একাডেমি সম্মাননা প্রবর্তন এর মাধ্যমে প্রতি বছর দেশজুড়ে ৩১৫ জন গুনীশিল্পী ও সংস্কৃতিকর্মীকে সম্মাননা প্রদান।

প্রশিক্ষণ ও কর্মশালা

১. রবীন্দ্র সঙ্গীত, নজরুল সঙ্গীত, লোক সঙ্গীত, পঞ্চগীতিকবির গান, একুশের গান এবং স্বাধীনতার গান বিষয়ক উন্মুক্ত সঙ্গীত প্রশিক্ষণ কর্মশালা পরিচালনা।
২. নিয়মিত মূকাভিনয় কর্মশালা আয়োজন।
৩. প্রতিবছর শিল্পবোধ ও শিল্পকলার ইতিহাস বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন।
৪. বছরব্যাপী শাস্ত্রীয় সঙ্গীত, শাস্ত্রীয় নৃত্য, সেতার ও সরোদ প্রশিক্ষণ আয়োজন।
৫. কলেজ শিক্ষার্থীদের নিয়ে প্যান্টোমাইম কর্মশালা আয়োজন।
৬. মূক ও বধিরদের নিয়ে মূকাভিনয় কর্মশালা আয়োজন।
৭. অটিজম এর উপর কর্মশালা আয়োজন।
৮. ছৌ নৃত্য বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন।
৯. চর্যানৃত্য বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন। 
১০. রূপসজ্জা বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন। 
১১. সাউন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন।
১২. দেশব্যাপী দুই হাজার স্কুল, কলেজ ও বিশ^বিদ্যালয়ে জাতীয় সঙ্গীত ও বাংলা সঙ্গীত শিক্ষণ কর্মসূচি আয়োজন।
১৩. যৌথভাবে বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশান এর সাথে নিয়মিতভাবে লেকচার ওয়ার্কশপ আয়োজন।
১৪. শাস্ত্রীয় নৃত্য বিষয়ক সেমিনার ও কর্মশালা আয়োজন।
১৫. গৌড়ীয় নৃত্য বিষয়ক সেমিনার ও কর্মশালা আয়োজন।
১৬. ব্যালে, সালসা রামবা ও সামবা নৃত্য কর্মশালা আয়োজন।
১৭. আফ্রিকা ও ল্যাটিন আমেরিকার নৃত্যধারা বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন।
১৮. ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার শিবপুরে ওস্তাদ আলাউদ্দীন খাঁর সঙ্গীত বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন।
১৯. সিরাজগঞ্জ জেলার বেলকুচি উপজেলায় রজনীকান্ত সেনের গানের কর্মশালা আয়োজন।
২০. কুমিল্লায় শচীন দেব বর্মণ এর গানের কর্মশালা আয়োজন।
২১. শরীয়তপুর জেলার নাড়িয়া উপজেলায় অতুলপ্রসাদ সেন এর গানের কর্মশালা আয়োজন।
২২. প্রখ্যাত নৃত্যশিল্পী সোমাগিরির পরিচালনায় নৃত্য কর্মশালা আয়োজন।
২৩. গোপালগঞ্জে বঙ্গবন্ধুর উপর সুরারোচিত গান বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা আয়োজন।
২৪. বাংলা খেয়াল এর কর্মশালা আয়োজন।
২৫. লালনের ভাবগীত কর্মশালা আয়োজন।
২৬. ভূপেন হাজারিকার গান নিয়ে কর্মশালা আয়োজন।
২৭. স্টাফ নোটেশন প্রশিক্ষণ আয়োজন।
২৮. বাঁশী বাদন প্রশিক্ষণ আয়োজন।
২৯. ঢাকা, ময়মনসিংহ, রাজশাহীতে আজাদ রহমান এর পরিচালনায় বাংলা খেয়াল এর কর্মশালা আয়োজন।
৩০. সিলেটে গুরুসদয় দত্তের ব্রতচারী ও রায়বেশের উপর কর্মশালা আয়োজন।
৩১.সারাদেশের নাট্য প্রশিক্ষকদের ‘নাট্য বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা’ আয়োজন।

উৎসবসমূহ

১. মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক নাট্যোৎসব ২০১২, স্বপ্ন ও দ্রোহের নাট্যোৎসব ২০১৩, সাহিত্য নির্ভর নাট্যোৎসব ২০১৪ এবং মূল্যবোধের নাট্যোৎসব ২০১৫ আয়োজন।
২. ২৫টি নাট্যদলকে রবীন্দ্রনাট্য প্রযোজনার জন্য অনুদান প্রদান এবং এসব নাটক নিয়ে উৎসব আয়োজন।
৩. ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী নাট্যোৎসব ও সাংস্কৃতিক উৎসব আয়োজন।
৪. ৬৪ জেলা এবং বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির অংশগ্রহণে বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক উৎসব আয়োজন।
৫. গোপালগঞ্জে শেখ ফজলুল হক মনি সাংস্কৃতিক উৎসব আয়োজন।
৬. মানবতার জাগরণে বাউল উৎসব আয়োজন।
৭. কুস্টিয়ায় বাউল মেলা ও সেমিনার আয়োজন।
৮. বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশান ও বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি যৌথভাবে ‘এ মাটি নয় জঙ্গিবাদের, এ মাটি মানবতার’ শীর্ষক শ্লে-াগান নিয়ে ‘জাতীয় নাট্যোৎসব ২০১৬’ আয়োজন।
৯. প্রয়াত নাট্যকার শহীদ মুনীর চৌধুরী ও সেলিম আল দীন স্মরণে নাট্যোৎসব আয়োজন।
১০.ন্যাশনাল পারফরমেন্স আর্ট ফেস্টিভ্যাল ২০১৭।

শিল্পের আলোয় মুক্তিযুদ্ধ

১. ১০০টি মুক্তিযুদ্ধের নাটক নিয়ে মুক্তিযুদ্ধের জাতীয় নাট্য উৎসব ২০১২ আয়োজন এবং ৭৬ টি মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক নতুন নাটক নির্মাণ।
২. ‘স্বাধীনতার ৪০ বছর ও শিল্পের আলোয় মহান মুক্তিযুদ্ধ’ শীর্ষক কর্মসূচির আওতায় নাটক, চলচ্চিত্র, সঙ্গীত, নৃত্য, চারুকলা, ফটোগ্রাফি, আবৃত্তিসহ শিল্পের বিভিন্ন শাখায় দেশের শিশু, কিশোর, যুব ও প্রবীণদের অংশগ্রহণে মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক বিশাল শিল্পযজ্ঞের আয়োজন।

শিল্পের আলোয় বঙ্গবন্ধু

১. ‘বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’ শিরোনামে বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক কবিতা ও গানের আলোকে দেশের ১০০ জন শিল্পীর মাধ্যমে ১০০ টি চিত্রকর্ম নির্মাণ ও প্রদর্শনী।
২. বঙ্গবন্ধু-বাংলাদেশের প্রতীক শিরোনামে শাহজাহান আহমেদ বিকাশ-এর একক চিত্র প্রদর্শনী আয়োজন।
৩. দেশজুড়ে শিশু, কিশোর ও যুুবকদের অংশগ্রহণে বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষণ প্রতিযোগিতা আয়োজন।
৪. গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় অবস্থিত বঙ্গবন্ধুর সমাধিস্থলে আর্টক্যাম্পের আয়োজন এবং শিশুদের অঙ্কিত চিত্রকর্ম ও বরেণ্য শিল্পীদের চিত্র প্রদর্শনী।
৫. বঙ্গবন্ধুর উপর রচিত গ্রন্থ নিয়ে প্রদর্শনী, গ্রন্থ পর্যালোচনা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও বঙ্গবন্ধুর উপর রচিত গানের উপর কোরিওগ্রাফী প্রদর্শন।
৬. বঙ্গবন্ধুর উপর শিশুদের অঙ্কিত চিত্রকর্ম এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর কর্মময় জীবনের উপর আলোকচিত্র প্রদর্শনী।
৭. ‘বঙ্গবন্ধুর গল্প শোনা’ শিরোনামে গল্পবলার আসর ও বঙ্গবন্ধুর উপর ঢাকা মহানগর শিশু চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা আয়োজন।

অ্যাক্রোবেটিক

১. ২০১২ সালে অ্যাক্রোবেটিক প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, রাজবাড়ী-তে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি অ্যাক্রোবেটিক দল গঠন, ১০টি অ্যাক্রোবেটিক প্রদর্শনী ও ০২টি শিশু অ্যাক্রোবেটিক কর্মশালা আয়োজন।
২. ২০১৩ থেকে এপর্যন্ত ৬৪টি জেলায় এবং উপজেলা পর্যায়ে দেশব্যাপী প্রায় ২৩০টি অ্যাক্রোবেটিক প্রদর্শনী সম্পন্ন।
৩. নতুন অ্যাক্রোবেটিক শিল্পী তৈরীর লক্ষে জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে ১৩টি কর্মশালা সম্পন্ন।
৪. ২০১৬ সালে ১০জন শিশু অ্যাক্রোবেটিক শিল্পীকে এক বছরের জন্য চীনে প্রেরণ এবং ২০১৭ সালে আরো ১০জন শিল্পীকে প্রেরণ করা হবে।
৫. বিদেশী কয়েকটি অ্যাক্রোবেটিক দল নিয়ে এসে প্রদর্শনীর আয়োজন।

চলচ্চিত্র

১. নিয়মিত বিষয়ভিত্তিক চলচ্চিত্র উৎসব আয়োজন।
২. নিয়মিতভাবে প্রতি বছর নারী নির্মাতাদের চলচ্চিত্র নিয়ে উৎসব আয়োজন।
৩. নিয়মিতভাবে প্রতি বছর শিশুতোষ চলচ্চিত্র নিয়ে উৎসব আয়োজন।
৪. নিয়মিতভাবে দেশব্যাপী জঙ্গিবাদ বিরোধী আলোচনা ও চলচ্চিত্র প্রদর্শনী আয়োজন।
৫. নিয়মিতভাবে প্রতি বছর মহান একুশে ও আন্তর্জাতিক মার্তৃভাষা দিবস উপলক্ষে বিশ্বের বিভিন্ন ভাষার চলচ্চিত্র নিয়ে ‘নানান ভাষার নানান ছবি’ শিরোনামে চলচ্চিত্র প্রদর্শনী আয়োজন।
৬. নিয়মিতভাবে মহান মুক্তিযুদ্ধের চলচ্চিত্র নিয়ে উৎসব আয়োজন, জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুর উপর নির্মিত তথ্যচিত্র নিয়ে উৎসব আয়োজন এবং লোকজ চলচ্চিত্র নিয়ে উৎসব আয়োজন।
৭. বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস উদ্যাপন উপলক্ষে শিশু চলচ্চিত্র প্রদর্শনী আয়োজন।
৮. নিয়মিতভাবে চলচ্চিত্র নির্মাণ কর্মশালা, শিশুদের চলচ্চিত্র নির্মাণ কর্মশালা, পাঠচক্র, সেমিনার, সিম্পোজিয়াম, রোট্রোসপেক্টিভ, চলচ্চিত্র সমালোচনা ও মতবিনিময় সভা আয়োজন।
৯. পূর্ণদের্ঘ্য কাহিনি চলচ্চিত্র নিয়ে ৬৪টি জেলায় একযোগে ‘বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উৎসব- ২০১৫’ আয়োজন।
১০. একযোগে ৬৪টি জেলায় ‘বাংলাদেশ স্বল্পদৈর্ঘ্য ও প্রামাণ্য চলচ্চিত্র উৎসব- ২০১৬’ আয়োজন।
১১. অস্কার জয়ী চলচ্চিত্র নিয়ে উৎসব, বিখ্যাত কমিক অভিনেতা ও পরিচালক চার্লি চ্যাপলিন এর চলচ্চিত্র নিয়ে উৎসব, ইরানী চলচ্চিত্রকার আব্বাস কিয়েরোস্তমির চলচ্চিত্র নিয়ে উৎসব আয়োজন।
১২. ৬৪টি জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে ফিল্ম সোসাইটি গঠন।
১৩. চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সংগঠনের সাথে যৌথভাবে চলচ্চিত্রের নানামূখি কর্মসূচি আয়োজন।
১৪. রবীন্দ্রনাথের শিশুতোষ গল্প ও কবিতা নিয়ে ৪টি চলচ্চিত্র নির্মাণ এবং ১টি প্রক্রিয়াধীন।
১৫. ওবীন্দ্রনাথের সার্ধশততম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে ০৩টি শিশুতোষ চলচ্চিত্র নির্মাণ এবং ০২টি প্রক্রিয়াধীন।
১৬. ম্যুভিয়ানা ফিল্ম সোসাইটির সাথে যৌথভাবে ডিজিটাল চলচ্চিত্র নির্মাণ কর্মশালা, বছরব্যাপী ‘নতুন চলচ্চিত্র নতুন নির্মাতা’ উৎসব আয়োজন, ফিল্ম অ্যাপ্রিসিয়েশন কোর্স, বিশ্ব চলচ্চিত্র অনুধাবন কর্মসূচিসহ করা হয়েছে নানা আয়োজন।
১৭. যৌথভাবে তানভীর মোকাম্মেল পরিচালিত জীবনঢুলী এবং মোরশেদুল ইসলাম পরিচালিত ‘অনিল বাগচীর একদিন’ সারা বাংলাদেশে প্রদর্শনীর ব্যবস্থাকরণ।
১৮. বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভ, ফেডারেশন অব ফিল্ম সোসাইটি অব বাংলাদেশ, বাংলাদেশ শর্ট ফিল্ম ফোরাম, কিনো আই ফিল্মস, চিলড্রেন ফিল্ম সোসাইটি বাংলাদেশ, তারেক মাসুদ মেমোরিয়াল ট্রাস্ট, চিপাচস, ম্যুভিয়ানা ফিল্ম সোসাইটি, আলমগীর ফিল্ম সোসাইটি, সার্ক চলচ্চিত্র সংসদসহ বিভিন্ন চলচ্চিত্র প্রতিষ্ঠান/সংগঠনকে সহযোগিতা প্রদান। 

যাত্রাশিল্পে নবযাত্রা

১. সংকটাপন্ন যাত্রাশিল্পের নতুন জীবন দান এবং যাত্রাশিল্পের নতুন নীতিমালা তৈরি ও তা বাস্তবায়ন।
২. রেপার্টরী যাত্রাপালা ‘রক্তাক্ত প্রান্তর’ নির্মাণ ও নিয়মিত প্রদর্শনী আয়োজন। 
৩. প্রত্মযাত্রা ‘ঈশা খাঁ’ নির্মাণ ও নিয়মিত প্রদর্শনী আয়োজন।
৪. যাত্রাদল নিবন্ধনের লক্ষে এপর্যন্ত ৮টি যাত্রা উৎসব সম্পন্ন এবং ১০২টি যাত্রাদলকে নিবন্ধন প্রদান।
৫. যাত্রাদলের সত্ত্বাধিকারী, ম্যানেজার ও শিল্পীবৃন্দের সাথে নিয়মিতভাবে সেমিনার, পালা মূল্যায়ন, মতবিনিময় সভা ও কর্মশালা আয়োজন।
৬. কোলকাতার যাত্রা বিশেষজ্ঞ ড. প্রভাত কুমার দাস কে ঢাকায় এনে এর সেমিনার ও মতবিনিময় সভা আয়োজন।
৭. বাংলাদেশের সকল নিবন্ধিত যাত্রাদল থেকে শিল্পী নিয়ে আটদিন ব্যাপী যাত্রা বিষয়ক কর্মশালা ও যাত্রাদলের নৃত্যশিল্পীদের নিয়ে নৃত্য কর্মশালা আয়োজন এবং ০৫টি কর্মশালাভিত্তিক প্রযোজনা নির্মাণ।
৮. জেলা শিল্পকলা একাডেমি আয়োজিত যাত্রা উৎসবে এবং কয়েকটি যাত্রাদলকে নতুন যাত্রা প্রযোজনা নির্মাণে সহযোগিতা প্রদান।

পুতুলনাট্য

১. পুতুলনাট্যে বিশেষ অবদানের জন্য ২০১২ সাল থেকে পদক প্রবর্তন। 
২. পুতুলনাট্য বিষয়ক কর্মশালা আয়োজন। 
৩. পুতুলনাট্য উৎসব আয়োজন। 
৪. বিগত তিন বছরে ইন্দোনেশিয়ায় ও থাইল্যান্ডে বিশ্ব পুতুলনাট্য উৎসবে বাংলাদেশের পুতুলনাট্য দলের গর্বিত অংশগ্রহণ।
৫. বিশ^ পুতুলনাট্য দিবস উদ্যাপন।

স্মৃতি, সত্ত্বা, ভবিষ্যৎ

১. সাঈদ আহমেদ, মুনীর চৌধুরী, সেলিম আল দীন, আবদুল্লাহ আল মামুন, জিয়া হায়দার, নুরুল মোমেন, এস এম সোলায়মান, সৈয়দ ওয়ালীউল্লাহ এবং আনিস চৌধুরী স্মরণে অনুষ্ঠান আয়োজন।
২. জহির রায়হান, আব্দুল জব্বার খান, তারেক মাসুদ, সুভাষ দত্ত, খান আতাউর রহমান, বাদল রহমান, আলমগীর কবির, চাষী নজরুল ইসলাম, হুমায়ুন আহমেদ, অমলেন্দু বিশ^াস, ধন মিয়া, আরজ আলী মাতুব্বর এর স্মরণে স্মৃতি, সত্তা, ভবিষ্যৎ নামে স্মরণ অনুষ্ঠান আয়োজন।
৩. মহেশচন্দ্র রায়, এ কে এম আব্দুল আজিজ, হরলাল রায়, কছিম উদ্দিন, আব্বাসউদ্দিন, আব্দুল আলীম, ওস্তাদ মমতাজ আলী খান, আব্দুর রউফ, রজনীকান্ত সেন, অতুল প্রসাদ সেন, দ্বিজেন্দ্র লাল রায়, রণেশ দাশগুপ্ত, আব্দুল লতিফ, আলতাফ মাহমুদ, মুকুন্দ দাস, কবিয়াল রমেশ চন্দ্র শীল, কবিয়াল বিজয় সরকার, শেখ লুতফর রহমান, ওয়াহিদুল হক কলিম শরাফি, অজিত রায়, শহীদুল্লাহ কায়সার, ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ, ওস্তাদ আয়াত আলী খাঁ, প-িত রবি শংকর, ওস্তাদ আলী আকবর খাঁ, কমল দাশগুপ্ত, ফিরোজা বেগম স্মরণে স্মৃতি, সত্তা, ভবিষ্যৎ নামে অনুষ্ঠান আয়োজন।

আলোকিত জেলা শিল্পকলা একাডেমি

১. জেলা শিল্পকলা একাডেমিসমূহের ভবন নির্মাণ ও সংস্কার কাজের সূচনা।
২. প্রতিটি জেলার জন্য কর্মকর্তা ও কর্মচারী নিয়োগ।
৩. প্রতিটি জেলা ডিজিটালাইজেশন (কম্পিউটার, প্রিন্টার, স্ক্যানার, ইন্টারনেট সংযোগ)।
৪. জেলা শিল্পকলা একাডেমি লাইব্রেরী, ফোকলোর সেল, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী সেল, চলচ্চিত্র সংসদ গঠন।
৫. শিশু ও কিশোরদের জন্য জেলা শিল্পকলা একাডেমিসমূহে সঙ্গীত, নৃত্য, আবৃত্তি, নাটক, চিত্রকলা বিষয়ে নিয়মিত প্রশিক্ষণ প্রদান।
৬. নিয়মিত চলচ্চিত্র প্রদর্শনীর জন্য সাউন্ড সিস্টেম ও প্রজেক্টর প্রদান।

সিডি প্রকাশ

১. ‘যতদিন রবে পদ্মা মেঘনা’ ও ‘মুজিবর আছে বাংলার ঘরে ঘরে’ শিরোনামে ২টি গীতিআলেখ্য এর সিডিসহ পান্ডুলিপি প্রকাশ।
২. ‘কবিতায় বঙ্গবন্ধ’ু শিরোনামে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে কবিতা আবৃত্তির অডিও সিডি প্রকাশ।
৩. ‘ইতিহাসের মহানায়ক বঙ্গবন্ধু’ শিরোনামে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে রচিত গানের অডিও সিডি প্রকাশ।
৪. ‘দ্রোহ ও মুক্তির গান-১’ ও ‘দ্রোহ ও মুক্তির গান-২’ শিরোনামে মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে রচিত গানের সিডি প্রকাশ।
৫. ‘মুক্তিযুদ্ধের পঙ্ক্তিমালা’ শিরোনামে মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে রচিত কবিতার অডিও সিডি প্রকাশ।
৬. বীরমাতা বীরাঙ্গনাদের সাক্ষাৎকারভিত্তিক তথ্যচিত্র ‘বীরাঙ্গনা বীরমাতার জবানিতে একাত্তরের ভয়াল স্মৃতি’ নির্মাণ।
৭. ‘আমার দেখা বঙ্গবন্ধু’ শিরোনামে মহামান্য রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রীসহ দেশের বিশিষ্ট বুদ্ধিজীবী, রাজনীতিবিদ, শিল্পী, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বদের সাক্ষাৎকারভিত্তিক প্রামাণ্যচিত্র নির্মাণ।
৮. ‘মুক্তিযুদ্ধের নাট্য সংকলন: ১’ শিরোনামে ৬৪টি জেলার নাটক হতে বাছাইকৃত ১৬টি নাটকের পান্ডুলিপি মুদ্রণ এবং ‘মুক্তিযুদ্ধের নাট্য সংকলন: ২’ শিরোনামে ১০টি জেলার নাটকের পান্ডুলিপি মুদ্রণ।
৯. বারটি সুরে বারটি নৃত্যের অডিও সিডি প্রকাশ।
১০. দেশের ২০০ জন প্রতিশ্রুতিশীল শিশু কন্ঠশিল্পীর অংশগ্রহণে ২০টি অডিও সিডি নির্মাণ
১১. জাতীয় দিবস ও দেশীয় পার্বণ বিষয়ে ৮টি মডেল অনুষ্ঠানের সিডি নির্মাণ। বসন্ত জাগ্রত দ্বারে, Ĺতু বৈচিত্র্যে বাংলাদেশ, বাদল মেঘে মাদল বাজে, এসো নবনব রূপে, বিশ^কবি রবীন্দ্রনাথ, চির উন্নত মম শির, স্বাধীনতা ও বিজয়ের গাঁথা, মহান একুশে।
১২. ১০টি সুরে ১০টি নৃত্য নির্মাণ
১৩. জাতীয় সঙ্গীতের সিডি প্রকাশ ও সারা বাংলাদেশে দশহাজার সিডি প্রেরণ।
১৪. হাসন রাজার গান নিয়ে তিন খন্ডের সিডি ও স্বরলিপি প্রকাশ।

শতবর্ষী নাট্যমঞ্চ

১. বাংলাদেশের ৩০টি শতবর্ষী নাট্যমঞ্চ নিয়ে তথ্যচিত্র নির্মাণ।

বধ্যভূমি, গণহত্যার শিকার গ্রস্থদের স্মরণ

১. চুকনগর বধ্যভূমিতে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে ২দিনব্যাপী আর্ট ক্যাম্প ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন ও চুকনগর গণহত্যা দিবস উপলক্ষে খুলনা জেলার ডুমুরিয়া উপজেলার চুকনগর বধ্যভুমিতে দশহাজার মোমবাতি প্রজ¦লন।
২. প্রতিটি উপজেলা, জেলা ও ঢাকায় আন্তর্জাতিক গণহত্যার শিকারগ্রস্থদের স্মরণ ও মর্যাদাদান এবং গণহত্যা প্রতিরোধের আন্তর্জাতিক দিবস হিসেবে পালন।

ইন্টারন্যাশনাল ডিজিটাল কালচারাল আর্কাইভ স্থাপন

১. দেশি ও বিদেশি নাটক সঙ্গীত, চলচ্চিত্রসহ বিভিন্ন ধরণের অনুষ্ঠানের ডকুমেন্টেশন সংরক্ষণের জন্য জাতীয় নাট্যশালার ৫ম তলায় ইন্টারন্যাশনাল ডিজিটাল কালচারাল আর্কাইভ স্থাপন।

লোক সংস্কৃতি সংগ্রহ

১. সুনামগঞ্জ অঞ্চল, ঝিনাইদহ অঞ্চল, ময়মনসিংহ অঞ্চল, ফরিদপুর অঞ্চল এবং রংপুর বিভাগে লোক সংস্কৃতি সংগ্রহের কার্যক্রম শুরু।

রেপার্টরী নাটক

১. টার্গেট প্লাটুন, রুদ্র রবী ও জালিয়ানওয়ালাবাগ এবং বীরাঙ্গনাদের জীবনগাঁথা উপজীব্য করে বিদেহ নাট্য প্রযোজনা নির্মাণ।

প্রতœনাটক

১. সোমপুর কথন, উয়ারী বটেশ^র, মহাস্থানগড় (প্রক্রিয়াধীন) প্রতœনাটক নির্মাণ। 

পরিবেশ থিয়েটার

১. ঢাকায় সেই সব দিনগুলি, ফরিদপুরে কনসেনট্রেশন ক্যাম্প.৭১, মিরপুর জল্লাদ খানা, রংপুর টাউন হলে কনসেনট্রেশন ক্যাম্প.৭১, মেহেরপুরের মুজিবনগরে বৈদ্যনাথতলা থেকে মুজিবনগর পরিবেশ থিয়েটার নির্মাণ।

আন্তর্জাতিক

১. সার্কভূক্ত ৮টি দেশের লোকজ নৃত্য নিয়ে সার্ক ফোক ডান্স ফেস্টিভ্যাল ২০১২ আয়োজন।
২. ৬ষ্ঠ এশিয়ান আর্ট মিউজিয়াম ডিরেক্টরস ফোরাম ২০১২ আয়োজন।
৩. সার্কভুক্ত দেশগুলির অংশগ্রহণে সার্ক হ্যান্ডিক্র্যাফট ফেস্টিভ্যাল ২০১৩ আয়োজন।
৪. কালচারাল ডাইভারসিটি মিনিস্ট্রিয়াল ফোরাম আয়োজন।
৫. ইসলামিক এডুকেশনাল, সায়েন্টিফিক এন্ড কালচারাল অরগানাইজেশন (আইসেসকো) কর্তৃক ঢাকা: এশীয় অঞ্চলের ইসলামি সংস্কৃতির রাজধানী-২০১২ ঘোষাণার প্রেক্ষিতে ক্যালিগ্রাফি ও ইসলামিক চিত্রকলা প্রদর্শনী আয়োজন।
৬. দ্বিবার্ষিক এশীয় চারুকলা প্রদর্শনী আয়োজন।
৭. সার্কভূক্ত ৮টি দেশের চিত্রশিল্পীদের নিয়ে ‘সার্ক আর্টিস্ট ক্যাম্প-২০১৪’ আয়োজন।
৮. যৌথভাবে ঢাকা আর্ট সামিট আয়োজন।
৯. চীনা নববর্ষ ও বসন্ত উৎসব উপলক্ষে চীনা শিল্পীদের নিয়ে সাংস্কৃতিক উৎসব আয়োজন।
১০. রাশিয়ান ডে আয়োজন।
১১. স্প্যানিস শিল্পীদেরকে নিয়ে সাংষ্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন।
১২. ফিলিপাইন দূতাবাসের সাথে সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এবং একাডেমির সাথে যৌথ আয়োজনে ‘ঞযব ঢ়ড়বিৎ ড়ভ ংড়হম: অ ঈযড়ৎঁং ড়ভ ঈঁষঃঁৎব’ শীর্ষক অনুষ্ঠানের আয়োজন।
১৩. উইলিয়াম শেক্সপিয়রের ৪৫০তম জন্মবার্ষিকী ও ৪০০তম মৃত্যুবার্ষিকী উদ্যাপন উপলক্ষে বাংলাদেশস্থ ব্রিটিশ কাউন্সিল প্রযোজিত ‘এ ডিফরেন্ট রোমিও এন্ড জুলিয়েট’ নাটকের মঞ্চায়ন।
১৪. গ্যোটে ইন্সটিটিউট এর সাথে যৌথ আয়োজনে শিশুদের জন্য পারফরমেন্স আর্ট ঐ২ঙ আয়োজন।
১৫. গ্যোটে ইন্সটিটিউট এর সাথে যৌথ আয়োজনে কমন জেন্ডারদের নিয়ে পারফরমেন্স আর্ট আয়োজন।
১৬. কোরিয়ান দূতাবাসের সহযোগিতায় চার্ম অব কোরিয়া আয়োজন।
১৭. আমেরিকান দূতাবাসের সাথে হিপ হপ ড্যান্স আয়োজন।
১৮.রাশিয়ার চেখভ স্টুডিওর বাংলাদেশ ভ্রমণ : ‘চেখভ ও গাংচিল’ এবং ‘ভল্লুক’ মঞ্চায়ন।
১৯. আন্তর্জাতিক আলোকচিত্র উৎসব ‘ছবি মেলা’ আয়োজন।
২০. ‘এশিয়ান থিয়েটার সামিট ২০১৭’ আয়োজন। 

শিশুদের জন্য শিল্পকলা

১. শিশুদের জন্য নিয়মিত অনুষ্ঠান আয়োজন। 
২. শিশু মেলা এবং শিশু চলচ্চিত্র প্রদর্শনী আয়োজন। 
৩. শিশুদের অ্যাক্রোবেটিক প্রশিক্ষণ আয়োজন। 
৪. ‘গল্প কথন’ কর্মশালা ও সাংস্কৃিতক অনুষ্ঠান আয়োজন।
৫. শিশুদের জন্য যৌথভাবে শিশু নাট্য কর্মশালা ও নাট্যোৎসব আয়োজন।
৬. শিশুদের জন্য নিয়মিত পুতুলনাট্য প্রদর্শনী।

চিত্রকলা ও ফটোগ্রাফীতে অবদান

১. রবীন্দ্র সার্ধশত জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে রবীন্দ্রনাথের কবিতা নিয়ে ১০০টি চিত্রাঙ্কন। 
২. রবীন্দ্রনাথের চিত্রকর্ম প্রদর্শনী। 
৩. রবীন্দ্রনাথের স্মৃতিবিজড়িত ৪টি স্থানে আর্ট ক্যাম্প এবং চিত্রকর্ম নিয়ে চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন
৪. আইসিসিআর এর সহযোগিতায় রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের অঙ্কিত ৪২টি চিত্রকর্ম সংযোজন।
৫. বাংলাদেশের শিল্পীদের ২৫০টি চিত্রকর্ম ক্রয়।
৬. বাংলাদেশে ফটোগ্রাফি চর্চাকে উৎসাহিত করতে নিয়মিত ফটোগ্রাফি প্রদর্শনী, কর্মশালাসহ বহুমাত্রিক কর্মসূচি বাস্তবায়ন। 
৭. জাতীয় চারুকলা প্রদর্শনী ও নবীন শিল্পী চারুকলা প্রদর্শনী আয়োজন।
৮. ৩২ বছর পর জাতীয় ভাস্কর্য প্রদর্শনীর আয়োজন।
৯. ২১ আগস্ট নৃশংসতম গ্রেণেড হামলার উপর স্থাপনাশিল্পের প্রদর্শনী।
১০. গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় অবস্থিত বঙ্গবন্ধুর সমাধিস্থলে আর্টক্যাম্পের আয়োজন এবং শিশুদের অঙ্কিত চিত্রকর্ম ও বরেণ্য শিল্পীদের চিত্র প্রদর্শনী।
১১. ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ওস্তাদ আলাউদ্দীন খাঁ সঙ্গীতাঙ্গনে অগ্নিকান্ডের প্রতিবাদে ২ দিনব্যাপী আর্ট ক্যাম্প আয়োজন।
১২. জাতীয় চিত্রশালায় স্থায়ী গ্যালারী স্থাপন।
১৩. মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের ৩৫ বছর পূর্তি উপলক্ষে বরেণ্য শিল্পীদের নিয়ে আর্টিস্ট ক্যাম্পের আয়োজন।
১৪. বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন উপলক্ষে আর্টিস্ট ক্যাম্প, শিশু চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা আয়োজন।
১৫. মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে আর্টিষ্ট ক্যাম্প আয়োজন।
১৬. এস এম সুলতান উৎসবে আর্ট ক্যাম্প আয়োজন।
১৭. শিল্পী মোহাম্মদ ইবরাহিম এর চতুর্থ একক চিত্র প্রদর্শনী আয়োজন।
১৮.শহিদ মিনারে বরেণ্য চিত্রশিল্পীদের নিয়ে আর্ট ক্যাম্প আয়োজন 
। ১৯. ৪০ জন শিল্পীর ১০০টি চিত্রকর্মে ‘বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ’ আয়োজন।

অন্যান্য

১. কাজী নজরুল ইসলামের ‘বিদ্রোহী’ কবিতার ৯০ বছর পূর্তি উদ্্যাপন উপলক্ষে একটি নাট্য প্রযোজনা, বাংলাদেশ ও ভারতের শিল্পীদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানসহ বছরব্যাপী অনুষ্ঠানমালা আয়োজন।
২. ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী ঐতিহ্য সংগ্রহশালা স্থাপন। 
৩. শচীনদেব বর্মণ এর পৈত্রিক নিবাসে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন।
৪. রজনীকান্ত সেনের পৈত্রিক নিবাসে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন।
৫. সুচিত্রা সেনের পৈত্রিক নিবাস উদ্ধার ও চলচ্চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন।
৬. আতœহত্যা প্রবণতা প্রতিরোধে ঝিনাইদহে সেমিনার ও নাট্যপ্রদর্শনীর আয়োজন।
৭. কর্মকর্তা-কর্মচারীদের নিয়ে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান আয়োজন।
৮. পার্বত্য শান্তি চুক্তির বার্ষিকী উদ্যাপন।
৯. বিদেশী ভাষাভাষী শিল্পীদের নিয়ে কেন্দ্রিয় শহিদ মিনারে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদ্যাপন।
১০. বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি ও সকল জেলা শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে দেশব্যাপী ‘জঙ্গীবাদের বিরুদ্ধে সাংস্কৃতিক জাগরণ’ শীর্ষক আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন।
১১. উইলিয়াম শেক্সপিয়র এর ৪৫০তম জন্মবার্ষিকী ও ৪০০তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে শেক্সপিয়র কার্ণিভাল এর আয়োজন।
১২. ঝিনাইদহে আতœহত্যা প্রতিরোধে মতবিনিময় সভা, নাটক নির্মাণ ও প্রদর্শনীর আয়োজন।
১৩. শওকত ওসমানের জন্মশতবর্ষ উদ্যাপন।
১৪. সৈয়দ শামসুল হকের ৮২তম জন্মজয়ন্তী উদ্যাপন।
১৫. অধ্যাপক বোরহানউদ্দিন খান জাহাঙ্গীর এর ৮১তম জন্মবার্ষিকী পালন।
১৬. শিল্পকথা শিল্পীকথা গ্রন্থের প্রকাশনা উৎসব আয়োজন।
১৭.কথাসাহিত্যিক শওকত ওসমানের জন্মশতবর্ষ উদ্্যাপন।
১৮. নৃত্যনাট্য ‘দেবদাসী কমলা’র মঞ্চয়ন।।
১৯. সৈয়দ শামসুল হকের অনুবাদ হ্যামলেট-এর মঞ্চায়ন।
২০. ঐতিহ্যবাহী বাংলানাট্য উৎসব আয়োজন।
২১. হাজার বছরের বাংলাগান নিয়ে সাংস্কৃতিক আয়োজন।।